Royalbangla
Dr Md Ashek Mahmud Ferdaus
Dr Md Ashek Mahmud Ferdaus

গর্ভকালীন কোষ্ঠকাঠিন্য

গর্ভধারণ ও মাতৃত্ব

কোষ্ঠকাঠিন্য আমাদের দৈনন্দিন জীবনে একটি খুবই সাধারন সমস্যা। অনেকের টয়লেটে ঘণ্টার পর ঘণ্টা কেটে যায়, কিন্তু পেট পরিষ্কার হয় না। আবার অনেকের ২ দিন ৩ দিন কেটে যায় তাও পায়খানা হয় না। এ নিয়ে তারা খুবই অস্বস্তিতে ভোগেন। আর গর্ভকালীন সময়ে অধিকাংশ মা ই এই সমস্যাটির সম্মুখীন হন। যার কারনে কোষ্ঠকাঠিন্য সম্পর্কিত অনেক জতিলতার মুখোমুখি হতে হয়।

কোষ্ঠকাঠিন্য বলতে আমরা কি বুঝি?

  • মলত্যাগ যদি সপ্তাহে তিনবারের কম অথবা পরিমাণে খুব কম হয়।
  • অনেকক্ষণ ধরে চেষ্টা করেও মলত্যাগ না হয়।
  • অথবা মল অস্বাভাবিক রকমের শক্ত বা শুকনো হয়।
  • অথবা ঘন ঘন পায়খানা নরম কারক ঔষধ খেতে হয়।

গর্ভকালীন কোষ্ঠকাঠিন্য কেন হয়?

গর্ভকালীন সময়ে বিভিন্ন কারণে এ সমস্যা দেখা দেয়। তবে অস্বাস্থ্যকর জীবনযাপন ও খাদ্যাভ্যাস কোষ্ঠকাঠিন্যের পেছনে প্রধান ভূমিকা পালন করে

  • শাসবজি , ফলমূল কম খাওয়া, মশলাযুক্ত খাবার বেশি খাওয়া।
  • হাইপোথাইরয়েডিজম -থাইরয়েডগ্রন্থির সমস্যা।
  • মলের বেগ পেলেও চেপে রাখা যদি নিয়মিত অভ্যাসে পরিণত হয়।
  • পানি কম পান করা।
  • গর্ভধারণ- বাচ্চা জরায়ুতে বড় হয়ে খাদ্যনালীতে চাপ দেয়া
  • বমি হয়ে শরীরে লবন পানি কমে যাওয়া।
  • বিষণ্ণতা, মানসিক চাপ, অনিদ্রা।
  • ভিটামিন যেমন : ক্যালসিয়াম, আয়রন ইত্যাদি কমে যাওয়া ।
  • ব্যায়াম না করা এবং খাদ্যাভ্যাস সঠিক না হওয়া।
  • তবে কিছু ক্ষেত্রে এই সমস্যা বংশানুক্রমিক।

গর্ভকালীন কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে মুক্তির উপায়-

  • খাদ্যাভ্যাস পরিবর্তন ও স্বাস্থ্যকর জীবন যাপন করুন।
  • প্রতিদিন প্রচুর পানি ও তরল এবং যথেষ্ট আঁশযুক্ত খাবার খান।
  • শাকসবজি, ফলমূল যেমন বেল, পেঁপে ইত্যাদি আঁশযুক্ত খাবার খান।
  • দুশ্চিন্তা বা মানসিক চাপমুক্ত জীবনযাপনের চেষ্টা করুন।
  • যত দূর সম্ভব মল চেপে রাখার অভ‌্যাস ত‌্যাগ করুন।
  • নিয়মিত ব্যায়াম ও হাঁটাচলার অভ্যাস গড়ে তুলুন
  • ইসবগুলের ভুসি খেতে পারেন
  • কিছু কিছু ওষুধ যেমন-ব্যথানাশক ওষুধ, আয়রন বা ক্যালসিয়াম এর ক্ষেত্রে সতর্ক থাকুন। Constipation During Pregnancy
  • কফি, পিৎজা, ফাস্ট ফুড বা পাস্তার মতো খাবার এড়িয়ে চলুন
  • চকলেট, ভাজাপোড়া, লাল মাংস (গরু, খাসি ইত্যাদি), চিপস, প্রচুর চিনিযুক্ত বেকারি খাদ্য যেমন কেক, পেস্ট্রি কেক এবং আয়রন ক্যাপসুল, কাঁচাকলা ইত্যাদি কম খাওয়ার চেষ্টা করুন।
  • পায়খানা নরমকারক ঔষধ কম খাওয়া উচিত । কারণ, এতে মলদ্বারের স্বাভাবিক কার্যক্ষমতা বাধাপ্রাপ্ত হতে পারে।
  • জটিলতা কি হতে পারে?

    গর্ভকালীন সময়ে দীর্ঘ মেয়াদে কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে অনেক রকম জটিলতা হতে পারে। এমনকি এ থেকে গর্ভপাত থেকে শুরু করে অপরিণত বাচ্চা জন্ম নিতে পারে। তাছাড়া কলোরেক্টাল অনেক সমস্যা দেখা দিতে পারে যা পরবর্তীতে স্বাস্থ্য ঝূকি বাড়ায়। যেমন–

    • পাইলস থেকে রক্তপাত হতে পারে।
    • অ্যানাল ফিশার হয়ে প্রচণ্ড ব্যথা হতে পারে।
    • রেক্টাল প্রোলাপস বা মলদ্বার বাইরে বের হয়ে আসতে পারে।
    • ইন্টেসটাইনাল অবস্ট্রাকশন, পেটব্যথা বা ফাঁপা, অরুচি, ক্ষুধামান্দ্যের মতো জটিলতা সৃষ্টি হতে পারে।
    • ফিশার থেকে অ্যাবসেস এমনকি পরবর্তীতে ফিস্টুলা হতে পারে।
    • অকালে গর্ভপাত হতে পারে।
    • সময়ের পূর্বেই ডেলিভারি হতে পারে।

    তাই সময়মতো কোষ্ঠকাঠিন্যের যথাযথ ব্যবস্থা বা সতর্কতা অবলম্বন করলে এমনকি কোষ্ঠকাঠিন্য যাতে না হয় সেজন্য এই ব্যপারে সাবধানতা অবলম্বন করলে আমরা এই ঝূকি গুলো এড়িয়ে চলতে পারি।

    লেখক
    Colorectal Care Dr. Md Ashek Mahmud Ferdaus
    FCPS(surgery) FISCP(India) Ms(Colorectal Surgery) Bangabandhu Sheikh Mujib Medical Univarsity
    Chamber: নেক্সাস হাসপাতাল-ঢাকা রোড - ময়মনসিংহ
    Contact:01796586561

    1. royalbangla.com এ আপনার লেখা বা মতামত বা পরামর্শ পাঠাতে পারেন এই এ‌্যড্রেসে royal_bangla@yahoo.com
    পরবর্তী পোস্ট

    জেনে নিন থাইরয়েড সমস্যায় ওষুধ খাওয়ার সঠিক নিয়ম


    .

    দ্রুত গর্ভবতী হওয়ার উপায়


    রয়াল বাংলা ডেস্ক
    .

    গর্ভকালীন ডায়াবেটিস কি?


    ডা. মোঃ মাজহারুল হক তানিম
    .

    পুরুষের বন্ধ্যাত্বের সমস্যা কেন বাড়ছে ?


    ডাঃ আয়েশা রাইসুল
    .

    হরমোন ও বন্ধ্যাত্ব!


    ডা. মো মাজহারুল হক তানিম
    .

    প্রেগন্যন্সিতে বর্জনীয় খাবার অর্থাৎ যে খাবার গুলো গর্ভস্থ শিশুর জন্য বর্জন করতে হবে


    নিউট্রিশনিস্ট সাদিয়া স্মৃতি
    .

    গর্ভকালীন কোষ্ঠকাঠিন্য


    Dr Md Ashek Mahmud Ferdaus
    .

    গর্ভকালীন কোষ্ঠকাঠিন্য কেন হয়? এবং মুক্তির উপায় কী ?


    ডাঃ মোঃ আশেক মাহমুদ ফেরদৌস
    .

    হতাশা, মানসিক অসুস্থতার সাথে গর্ভকালীন ডায়বেটিসের সম্পর্ক ও আমাদের করণীয়


    ডা. ফাতেমা জোহরা
    .

    আসুন প্রসবোত্তর বিষন্নতা (Postpartum Depression) সম্বন্ধে জানি


    জিয়ানুর কবির
    .

    যৌনজীবনে পুরুষের একান্ত দুর্বলতার লক্ষণ, কারণ ও প্রতিকার


    ডাঃ আয়েশা রাইসুল (গভঃ রেজিঃ H-১৫৯৮)

    আক্কেল দাঁত কখন এবং কেন ফেলতে হয়?

    ডা: এস.এম.ছাদিক,ওরাল এন্ড ম্যাক্সিলোফেসিয়াল সার্জারী
    সাধারণত আক্কেল দাঁত সম্পূর্ণভাবে উঠার সময় হলো ১৭-২৫ বছর বয়স । কিন্তু ১৭-২০ বছর বয়সের মধ্যেই বুঝা যায় আক্কেল দাঁত সঠিকভাবে উঠবে কি না।....
    বিস্তারিত

    শালগম এর উপকারীতা

    পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন,পুষ্টি কর্মকর্তা
    শালগম অত্যন্ত পুষ্টিকর খাদ্য হিসেবে সুপরিচিত। ভিটামিন এ, সি এবং ভিটামিন কে তে ভরপুর থাকে শালগম। শালগমের সবচাইতে ভালো দিক হচ্ছে এদের ক্যালরি খুব কম থাকে। নিয়মিত শালগম খাওয়ার কিছু কারণ সম্পর্কে জেনে নিই চলুন।........
    বিস্তারিত

    সাইনাস আর সাইনুসাইটিস, আসুন সহজে বুঝে নিই.

    ডা: এস.এম.ছাদিক,ওরাল এন্ড ম্যাক্সিলোফেসিয়াল সার্জারী
    স্বাভাবিক নিশ্বাস নিতে মনে হয় নাকে কি যেনো আটকে আছে,, আবার নাক দিয়ে পানিও পড়ে। গায়ে হালকা জ্বর ও আছে, আবার সাথে মাথা ব্যাথা। তিনি ডাক্তারের কাছে গেলেন, ডাক্তার বললেন, আপনার সাইনুসাইটিস হয়েছে,........
    বিস্তারিত

    গর্ভাবস্থায় কি চা-কফি পান করা যায়?

    ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,Consultant Sonologist
    চা ও কফি আপনাদের অনেকেরই প্রছন্দের পানীয়। তাই গর্ভাবস্থায়ও খেতে চান, তাই না? এ ক্ষেত্রে আমাদের জানা উচিত এই পানীয় পান করা যাবে কি না, গেলে কতটুকু করা যাবে।......
    বিস্তারিত

    বাচ্চাদের ফল ও সবজি খাওয়ার অভ্যাস গড়ে তুলবেন কিভাবে?


    পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন।বিএসসি (সম্মান), এমএসসি (প্রথম শ্রেণী) (ফলিত পুষ্টি ও খাদ্য প্রযুক্তি)

    মহিলাদের ইনফার্টিলিটি দূর করার ক্ষেত্রে ডিম্বাণুর গুণাগুণ কেন গুরুত্বপূর্ণ?


    ডাঃ হাসনা হোসেন আখী,এমবিবিএস, বিসিএস (স্বাস্থ্য),এমএস (অবস এন্ড গাইনী)

    কিডনী সিস্ট কতটা ঝুঁকিপূর্ণ ?


    ডাঃ মোহাম্মদ ইব্রাহিম আলী,এম.বি.এস,বিসিএস (স্বাস্থ্য) ,এমএস (ইউরোলজি)

    শিশুদের ডায়েট কেমন হওয়া উচিত ?


    নিউট্রিশনিস্ট সুমাইয়া সিরাজী,Bsc (Hon's) Msc (food & Nutrition)

    লিভারের সুস্থতায় কি করবেন?


    নুসরাত জাহান, ডায়েট কনসালটেন্ট

    অনিয়মিত পিরিয়ডের কারণ , চিকিৎসা ও ঘরোয়া প্রতিকার


    ডাঃ হাসনা হোসেন আখী