Royalbangla
রয়ালবাংলা টিম
রয়ালবাংলা টিম

দ্রুত বীর্যপাত কেন হয়? কিভাবে হয়? কিভাবে সমাধান করা যায়?

পুরুষালি সমস‌্যা

দ্রুত বীর্যপাত কী? কেন হয়?

দ্রুত বীর্যপাত(premature ejaculation) পুরুষদের একটি সাধারণ যৌন সমস্যা। এক থেকে দেড় মিনিটের আগে যদি পুরুষের বীর্যপাত বা ইজাকুলেশন হয়ে যায়, একে আমরা সাধারণত দ্রুত বীর্যপাত বা প্রিম্যাচিউর ইজাকুলেশন বলি। পুরুষ বা তার সঙ্গীনী যতটুকু সঙ্গমের আশা করে তার চেয়ে অনেক দ্রুত যদি বীর্যপাত ঘটে সেটা মোটেও কাম্য নয় এবং এতে একজন বা উভয়েরই কষ্ট হয়। রতিকাজ(foreplay) শুরু হওয়ার সাথে সাথে কিছু পুরুষের বীর্যপাত হয়। অনেকে সঙ্গীর ভেতরে যাওয়ার চেষ্টা করার সময় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেন, আবার কারো কারো অনুপ্রবেশের পরে খুব দ্রুত বীর্যপাত হয়। যা-ই হোক না কেন, অকাল বীর্যপাত হতাশা সৃষ্টি করতে পারে এবং একজন পুরুষ এবং তার সঙ্গীনীর মধ্যে মন কষাকষি সৃষ্টি করতে পারে।

দ্রুত বীর্যপাতের কারণসমুহ দুইপ্রকার:

  • ক) পুরুষাঙ্গের শিথিলতা:সব পুরুষ যৌনমিলনের সময় তাদের লিঙ্গের উত্থান ঠিকমতো হবে কি না তা নিয়ে চিন্তিত থাকেন কিংবা কতক্ষণ লিঙ্গ উত্থিত অবস্থায় থাকবে তা নিয়ে দুশ্চিন্তায় ভোগেন, সেসব পুরুষের দ্রুত বীর্যস্খলন ঘটে।
  • খ)ঘুমের অসুবিধা।
  • গ) শারীরিক দূর্বলতা।
  • ঘ)মাদকাসক্তি বা নেশাগ্রস্ততা।
  • ঙ) মূত্রনালির সংক্রমন ও প্রদাহ।
  • চ) বিভিন্ন রোগ, যেমনঃ সিফিলিস, গনোরিয়া ইত্যাদি।
  • ছ) কোন মাদকদ্রব্য বা ওষুধ সেবন,যার কারণে দ্রুত বীর্যপাত হচ্ছে।
  • জ) ডায়াবেটিস।
  • ঝ) থাইরয়েড গ্রন্থির সমস্যা।
  • ঞ) বিভিন্ন হরমোন জনিত সমস্যা।
  • ট)হৃদরোগ।
  • ঠ) সার্জারি বা আঘাত জনিত কারণে স্নায়ুতন্ত্র ক্ষতিগ্রস্ত হলে।

দ্রুত বীর্যপাতের কারণসমুহ দুইপ্রকার:

জৈবিক কারণ সমূহঃ

  • ক) পুরুষাঙ্গের শিথিলতা:
    সব পুরুষ যৌনমিলনের সময় তাদের লিঙ্গের উত্থান ঠিকমতো হবে কি না তা নিয়ে চিন্তিত থাকেন কিংবা কতক্ষণ লিঙ্গ উত্থিত অবস্থায় থাকবে তা নিয়ে দুশ্চিন্তায় ভোগেন, সেসব পুরুষের দ্রুত বীর্যস্খলন ঘটে।
  • খ)ঘুমের অসুবিধা।
  • গ) শারীরিক দূর্বলতা।
  • ঘ)মাদকাসক্তি বা নেশাগ্রস্ততা।
  • ঙ) মূত্রনালির সংক্রমন ও প্রদাহ।
  • চ) বিভিন্ন রোগ, যেমনঃ সিফিলিস, গনোরিয়া ইত্যাদি।
  • ছ) কোন মাদকদ্রব্য বা ওষুধ সেবন,যার কারণে দ্রুত বীর্যপাত হচ্ছে।
  • জ) ডায়াবেটিস।
  • ঝ) থাইরয়েড গ্রন্থির সমস্যা।
  • ঞ) বিভিন্ন হরমোন জনিত সমস্যা।
  • ট)হৃদরোগ।
  • ঠ) সার্জারি বা আঘাত জনিত কারণে স্নায়ুতন্ত্র ক্ষতিগ্রস্ত হলে।

মানসিক কারণসমুহ:

  • ক) দুঃশ্চিন্তা/মানসিক চাপ/ডিপ্রেশন।
  • খ) আত্ম বিশ্বাসের অভাব
  • গ) সঠিক যৌন শিক্ষার অভাব।
  • ঘ) প্রি ম্যারাইটাল বা বিবাহ পূর্ব কাউন্সিলিং এর অভাব।
  • ঙ) সেক্স সম্পর্কে ভুল ধারনা।
  • চ) কম বয়সে সহবাস।
  • ছ) অতিরিক্ত প্রত্যাশা।
  • জ)আগের ব্যর্থতা বার বার মনে করা।
  • ঝ)সম্পর্ক অবনতি বা দাম্পত্য বা পারিবারিক কলহ।
  • ঞ)চাকরি -ব্যবসা জনিত কারণে দূরে থাকা এবং অনেকদিন পরপর শারীরিক সম্পর্কের সুযোগ পাওয়া।

দ্রুত বীর্যপাতের কুফল বা ফলাফল কী?

বারবার দ্রুত বীর্যপাতের ফলে পুরুষ হতাশাগ্রস্থ হয়ে যায়। স্ত্রীর সামনে লজ্জিত হতে হয়। মেজাজ খিটখিটে হয়ে যায়। যৌন মিলনের ইচ্ছা থাকে না বরং ভয় কাজ করে। কখনও কখনও সংসার জীবনে ভাঙ্গন দেখা দিতে পারে।

দ্রুত বীর্যপাতের জন্য চিকিৎসা:

ক) যৌন কৌশল প্রয়োগের মাধ্যমে:

১.পজ ও স্কুইজ টেকনিক:এই পদ্ধতিতে যৌন মিলনের সময় আপনার যখন মনে হবে বীর্যপাত হবে, তখন আপনি যৌন মিলন বন্ধ করে দিবেন, প্রয়োজনে লিঙ্গ যোনিদ্বার হতে বের করবেন এবং আপনার সঙ্গীকে বলবেন আপনার লিঙ্গের মুন্ডি ও দেহের সংযোগস্থলে চেপে ধরতে অথবা আপনি নিজেও চেপে ধরতে পারেন। এতে করে আপনার বীর্যপাতের ইচ্ছা দূরীভূত হয়ে যাবে।এটা অবশ্য অনুশীলনের ব্যাপার। আপনার প্রথম প্রথম নিয়ন্ত্রণ করতে সমস্যা হতে পারে, তবে অনুশীলনের সাধ্যমে এ পদ্ধতিতে সাফল্য অবশ্যই আসে।

২. সহবাসের পজিশন পরিবর্তনের মাধ্যমে:এই পদ্ধতিতে আপনার বীর্যপাতের সম্ভবনা তৈরি হলে, আপনি আপনার সঙ্গীকে উপরে উঠে সহবাস করতে বলবেন বা ভিন্ন পজিশনে চেষ্টা করুন , এতে আপনি আপনার বীর্যপাতকে দীর্ঘায়িত করতে পারবেন।

৩.একের অধিকবার মিলন এর মাধ্যমে: কয়েকবার বা একাধিক বার মিলন।এতে বীর্যথলিতে বীর্য না থাকার কারনে সহজেই সময় বৃদ্ধি পায়। তবে এই অভ্যাস নিয়মিত না করা উত্তম।

৪. কনডম ব্যবহারের মাধ্যমে: অবশ্যই মোটা কনডম ব্যবহার করবেন, যা আপনার অনুভূতিকে কমিয়ে দিবে।সেসব কনডম পরিহার করুন যা আপনার অনুভূতিকে বাড়িয়ে দিবে।কিছু অবশকারক কনডম বাজারে পাওয়া যায় যেমন ক্যারেক্স পাওয়ার শট ডিলে ইত্যাদি। এছাড়াও ডাবল কনডম পরেও দারুন সুবিধা পাওয়া যায়

৫. আস্তে আস্তে শ্বাস নিন: যখন আপনার মনে হবে বীর্যপাত হবে, তখন আস্তে আস্তে অর্থাত্‍ গভীর শ্বাস নিন,কয়েকবার করুন রাতারাতি না হলেও একটা সময়ে গিয়ে এটা কাজ করে ।

৬. অন্যমনস্ক হওয়ায় মাধ্যমে: এমনকোন বিষয়ে মনো সংযোগকরুন, যা আপনার অনুভূতিকে কমিয়ে দিবে। যেমন দুঃখজনক কোনো স্মৃতি,কঠিন হিসাব, উল্টোদিক থেকে গোনা ইত্যাদি ।

৭. মুখে সুপরি, দারুচিনি ভরে রাখুন ।যৌন সঙ্গমের সময়, মুখে সুপরি,দারুচিনি ভরে রাখুন। দেখবেন, সঙ্গম দীর্ঘায়িত হবে। এটা কিছুটা হলেও মনোযোগ কে সরিয়ে দেয়। প্রয়োজনে চুইংগাম চিবুতে পারেন।

খ) কাউন্সেলিং-এর মাধ্যমে:

আপনি যদি চিন্তা করেন আপনার লিঙ্গ উত্থিত হবে না, আপনি আপনার স্ত্রীকে পরিপূর্ন তৃপ্তি দিতে পারবেন না, তবে আপনি পারবেন না।আপনার দ্রুত বীর্যপাত হয়ে যাবে।সুতরাং মনে সাহস রাখবেন। আত্মবিশ্বাস নিয়ে , মানসিক প্রস্তুতি নিয়ে সঙ্গীনীর কাছে যাবেন। দ্রুত বীর্যপাতের জন্য যৌন থেরাপিস্টের সহায়তা নেওয়া যেতে পারে। এক্ষেত্রে প্রয়োজনে যৌনরোগ বিশেষজ্ঞ এমনকি মনোরোগ বিশেষজ্ঞের শরাণপন্ন হতে পারেন। এছাড়াও সাইকোথেরাপিস্ট এর শরাণাপন্ন হওয়া যেতে পারে। স্বামী-স্ত্রীর সম্পর্কে অবনতি হলেও দ্রুত বীর্যপাত হতে পারে| মনোবিজ্ঞানীদের মতে, পূর্বের কোন অবৈধ যৌন মিলন বা পাপবোধ বিশেষ করে হস্তমৈথুন নিয়ে আপনার মনে অপরাধ বোধ হলেও এ ধরণের ঘটনা ঘটতে পারে। তাই অবৈধ যৌন মিলন এড়িয়ে চলুন।

গ) ডায়েট এর মাধ্যমে :

দ্রুত বীর্যপাত রোধে কম কোলস্টেরল ও কম চিনি সমৃদ্ধ খাবার খান। প্রতিদিন সকাল ও সন্ধ্যায় এক কাপ গরম দুধের সাথে ১০ টি বাদাম (পানিতে ভিজিয়ে রাখা), জাফরান, এক চিমটি আদা ও এক চিমটি এলাচ মিশিয়ে খান। যৌন জীবনকে উপভোগ করতে নিয়মিত পুষ্টিকর খাবার খান। লিঙ্গ শিথিলতা কমানোর ডায়েট জানতে ক্লিক করে পড়ুন। এছাড়াও যৌন জীবনে সুখী হওয়ার ডায়েট সম্পর্কে জানতে পড়ুন।

ঘ) ব্যায়াম এর মাধ্যমে :

কেগেল ব্যায়াম - কেগেল ব্যায়াম সহ আরও কিছু এক্সারসাইজ আছে যা যৌন পারফরমেন্স উন্নত করতে সহায়ক। ব্যায়াম সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে ক্লিক করুন।

ঙ) ঔষধের মাধ্যমে সমাধান:

১। পেনাইল সংবেদন হ্রাস - লোকাল আনেস্থেশিয়াযুক্ত স্প্রে এবং ক্রিম পেনাইল সংবেদন হ্রাস করতে ব্যবহার করা যেতে পারে তবে তা অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শে প্রয়োগ করা উচিত। দুটি কনডম ব্যবহার করলেও সংবেদন কমাতে সহায়তা করতে পারে। যাদের পেনিসে সুড়সুড়ি বেশি, হাইপারসেন্সেটিভ তারা লিডোকেইন জেল / স্প্রে নিতে পারেন ১০ মিনিট আগে পেনিসে লাগাবেন ঢুকানোর আগেই অবশ্যই ধুয়ে নিতে হবে। ক্যারেক্স পাওয়ার শট ডিলে কনডম অথবা সেনসেশন কনডম ব্যবহার করতে পারেন।
২।কোন যৌনরোগ আছে কিনা তা চিকিৎসকের মাধ্যমে কনফার্ম হওয়া উচিত।
৩।দ্রুত বীর্যপাত যদি ইরেকটাইল ডিসফাংশনের(erectile dysfunction) সাথে সম্পর্কিত হয়, ইরেক্টাইল ডিসফাংশনের ঔষধ সেবন করা যেতে পারে তবে তা অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শে। ইরেক্টাইল ডিসফাংশন সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন। মনে রাখবেন দ্রুত বীর্যপাত ও ইরেক্টাইল ডিসফাংশন আলাদা সমস্যা। তবে অন্য কোন উপায়ে কাজ না হলে ঔষধ হলো শেষ সমাধান । কিন্তু আগে লাইফস্টাইল পরিবর্তনের মাধ্যমে যৌনসমস্যা দূর করার চেষ্টা করুন। সাধারণত চিকিৎসকগণও সহজেই রোগীকে ঔষধ প্রেস্ক্রাইব করতে চান না। যৌনজীবনে সুখী হতে সবচেয়ে দরকারি হল যৌন শিক্ষা। এই ওয়েবাসাইটের আর্টিকেলগুলো পড়ে দেখতে পারেন। ইন্টারনেট ঘাটাঘাটি করেও জানতে পারেন। মনে রাখবেন কোন কবিরাজী উত্তেজক ঔষধ হুট করে খাবেন না। এগুলো সাময়িক। আপনার সমস্যা বোঝার চেষ্টা করুন। দেখবেন আপনি নিজেই আপনার সমস্যা সমাধান করতে পারবেন। গুড লাক।

রয়ালবাংলা টিম
  1. royalbangla.com এ আপনার লেখা বা মতামত বা পরামর্শ পাঠাতে পারেন এই এ‌্যড্রেসে [email protected]
পরবর্তী পোস্ট

নরমাল ডেলিভারির জন্য টিপস


পরিবারকে সময় দিন

ডা: অনির্বাণ মোদক পূজন,হৃদরোগ, বাতজ্বর ও উচ্চ রক্তচাপ রোগ বিশেষজ্ঞ
খুব ব্যস্ত আপনি, ব্যস্ততা ছাপিয়ে কখন একটু বিশ্রাম নেবেন, সেই ফুসরত খুঁজতেই আপনি ক্লান্ত। অফিস থেকে বাসা, আবার বাসা থেকে সেই অফিস। অফিসেও তো কাজের চাপ আর অশান্তির কোনো শেষ নেই।......
বিস্তারিত

গর্ভাবস্থায় ওজন বৃদ্ধি।।

ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা),Consultant Sonologist
গর্ভাবস্থা হল শরীরের মধ্যে পরিবর্তনের একটি সময়। শিশুর বৃদ্ধি, প্ল্যাসেন্টা এবং শিশুর চারপাশে তরল (অ্যামনিয়োটিক ফ্লুইড) থাকার কারণে গর্ভাবস্থায় কিছু ওজন বৃদ্ধি হওয়া স্বাভাবিক।.........
বিস্তারিত

সিজারিয়ান (সি-সেকশনে) ডেলিভারি কি ? কেন?

ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা),Consultant Sonologist
সি-সেকশনের মাধ্যমে ডেলিভারি এক এক অঞ্চলে এক এক রকম। তবে গড়ে বিশ্বব্যাপী ১৫% জন্ম সি-সেকশনের মাধ্যমে হয়ে থাকে। ল্যাটিন আমেরিকা এবং ক্যারিবিয়ান অঞ্চলে এই হার সর্বোচ্চ (২৯.২%).......
বিস্তারিত

ডাউন্স সিন্ড্রোম!

নিউট্রিশনিস্ট সুমাইয়া সিরাজী
এই হরমোন আমাদের ক্ষুধা কে নিয়ন্ত্রন করে।কিছু কিছু ডাটা দেখাচ্ছে যে এই হরমোন ডাউন্স সিন্ড্রোমিক চাইল্ড দের বেড়ে যাওয়ার কারনে তাদের এই ক্ষুধার নিয়ন্ত্রন থাকে না যা অবেসিটির ঝুকিতে ফেলে দেয়।.....
বিস্তারিত

ড্রিপ্রেশন ম্যানেজমেন্টে পরিবার বা প্রিয়জনের ভূমিকা

জিয়ানুর কবির,ক্লিনিক্যাল সাইকোলজিষ্ট
ডিপ্রেশনের চিকিৎসায় মেডিসিন ও সাইকোথেরাপী দুই ধরনের চিকিৎসা পদ্ধতি ব্যবহৃত হয়। বিষন্নতার মাত্রা অল্প হলে শুধুমাত্র সাইকোথেরাপি দিয়ে চিকিৎসা করলে ভালো হয়ে যায়।....
বিস্তারিত

ডায়াবেটিক পেশেন্ট কি উপায়ে তরমুজ খাবেন

পুষ্টিবিদ মুনিয়া মৌরিন মুমু
ঋতু হিসেবে গ্রীষ্মকাল অনেকের পছন্দের তালিকায় থাকে। গ্রীষ্মকালের অন্যান্য বৈশিষ্ট্যের মধ্যে একটি চমৎকার বৈশিষ্ট্য হচ্ছে এই মৌসুমে পুষ্টিগুণে ভরপুর সব মুখরোচক ফল .....
বিস্তারিত

হাত- পা জ্বালাপোড়া

ডা. মুহম্মদ মুহিদুল ইসলাম,সায়েন্টিফিক অফিসার
চেম্বারে অনেক রোগী আসেন যাদের সমস্যা হাত-পা জ্বালাপোড়া। কেউ কেউ বলেন হাত-পা ঝিমঝিম করে,হাত পা টানে,খোচাখোচা অনুভূতি হয়।মোটা দাগে এগুলো সব নার্ভের সমস্যা যাকে Peripheral Neuropathy.....
বিস্তারিত

কেমন হবে মাহে রমজানের খাবার ব্যাবস্থাপনা

পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন,পুষ্টি কর্মকর্তা
মাহে রমজানে বিশ্বের সকল দেশের মুসলিমগন হরেক রকমের খাওয়া দাওয়ার আয়োজন করে থাকেন। কিন্তু আমাদের ভোজন রসিক বাঙালির খাওয়া দাওয়ার পারদ টা....
বিস্তারিত

রমজান মাসের স্বাস্থ্য সতর্কতা:

Colorectal Care Dr. Md Ashek Mahmud Ferdaus
রমজান মাস মুসলমানদের একটি পবিত্র মাস। সওয়াবের মাস। এবাদত বন্দেগী ও সংযমের মাস। এ মাস আল্লাহ পাকের রহমত ও বরকতের মাস। রোযা আমাদের প্রতিটি কাজে সংযমের শিক্ষা দেয়।......
বিস্তারিত

দাম্পত্য জীবন সুখি করবেন কিভাবে??

জিয়ানুর কবির,ক্লিনিক্যাল সাইকোলজিষ্ট
বর্তমানে প্রাকটিসে প্রায় দম্পতিরা সমস্যা নিয়ে আসেন। কোন সময় একজন এসে তার সঙ্গীর সমস্যা বলতে থাকেন। আবার কখনো দুজনই একসাথে আসেন।.....
বিস্তারিত

খালিপেটে নাকি ভরাপেটে খাবেন ঔষধ!!

ডা. মুহম্মদ মুহিদুল ইসলাম,সায়েন্টিফিক অফিসার
আজকাল অনেক চিকিৎসক ই আছেন রোগী কে সুন্দর করে প্রেস্ক্রিপশন বুঝিয়ে বলে দেন।এতে রোগী যেমন রোগ সম্পর্কে সচেতন হয় তেমনি ঔষধ গুলো বুঝে নিলে চিকিৎসক এর নির্দেশনা মেনে খেতে পারে।....
বিস্তারিত

শিশুর অতিরিক্ত প্রোটিন গ্রহনের কুফল

নিউট্রিশনিস্ট সুমাইয়া সিরাজী,
ইদানীং শিশুদের কে চাহিদার অতিরিক্ত প্রোটিন গ্রহন করতে দেখা যাচ্ছে। যার ফলে শিশু নানা রকম স্বাস্থ্য ঝুকিতে পড়ে যাচ্ছে যা মারাত্মক আকার ধারন করার আগেই আমাদের সচেতন হওয়া প্রয়োজন।....
বিস্তারিত

ডালিম বা বেদানায় কতখানি আয়রন?


ডাঃ গুলজার হোসেন ,বিশেষজ্ঞ হেমাটোলজিস্ট

হৃদরোগের ঝুঁকি কমিয়ে সুরক্ষিত থাকুন


পুষ্টিবিদ মুনিয়া মৌরিন মুমু,নিউট্রিশনিস্ট

স্মার্টফোনে আসক্তি কমাতে করণীয়


ডা: অনির্বাণ মোদক পূজন,হৃদরোগ, বাতজ্বর ও উচ্চ রক্তচাপ রোগ বিশেষজ্ঞ

মাউথ আলসার কি? কেন হয়?


ডা: এস.এম.ছাদিক,ওরাল এন্ড ম্যাক্সিলোফেসিয়াল সার্জারী

এনোমালি স্ক্যান (Anomaly Scan) কি এবং এই স্ক্যান করার প্রয়োজনীয়তা কতটুকু?


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,Consultant Sonologist

বাধাকপি


পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন,পুষ্টি কর্মকর্তা

ডিপ্রেশন একটা মানসিক রোগ


জিয়ানুর কবির,ক্লিনিক্যাল সাইকোলজিষ্ট

Stop bullying plz - ফেসবুকে বাজে কমেন্টস এবং বাস্তব জীবনে মানুষকে হেয় করে গাল-মন্দ করা বন্ধ করুন


নিউট্রিশনিস্ট সুমাইয়া সিরাজী,Bsc (Hon's) Msc (food & Nutrition)

অকাল গর্ভপাতের ৬ কারণ


ডাঃ হাসনা হোসেন আখী,এমবিবিএস, বিসিএস (স্বাস্থ্য),এমএস (অবস এন্ড গাইনী)

সুস্থতায় নিয়মানুবর্তিতা: যেসব নিয়ম মেনে চললে দীর্ঘদিন সুস্থ থাকা যায়


পুষ্টিবিদ মুনিয়া মৌরিন মুমু

বাচ্চার আদর্শ খাদ্যাভ্যাস গড়ে তুলতে যা করা উচিত এবং যা করা উচিত নয়


নিউট্রিশনিস্ট সুমাইয়া সিরাজী,Bsc (Hon's) Msc (food & Nutrition)

সুপারবাগ: মানবজাতির জন্য কতটা ভয়ংকর?


ডাঃ গুলজার হোসেন ,বিশেষজ্ঞ হেমাটোলজিস্ট

আত্মহত্যা প্রতিরোধে আমাদের যা করা উচিত


ডা. ফাতেমা জোহরা , মনোরোগ, যৌনরোগ ও মাদকাসক্তি নিরাময় বিশেষজ্ঞ

গর্ভধারণ এবং স্তন ক্যান্সার পর্ব ১


ডাঃ লায়লা শিরিন,অধ্যাপক, ক্যান্সার সার্জারী, জাতীয় ক্যান্সার গবেষণা ইন্সটিটিউট ও হাসপাতাল।

ইউরিক এসিড জনিত সমস্যায় কি করণীয় জেনে নিন


ডা: অনির্বাণ মোদক পূজন,হৃদরোগ, বাতজ্বর ও উচ্চ রক্তচাপ রোগ বিশেষজ্ঞ

হাইপোথাইরয়েডিজম (Hypothyroidism)- গর্ভবতী মা ও অনাগত শিশুর উপর এর প্রভাব


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,,Consultant Sonologist

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কিভাবে বাড়াবেন?


পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন

ফিটাল প্রেজেন্টেশন ও নরমাল ডেলিভারি।


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা)

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্যসম্মত বৈজ্ঞানিক ও যৌক্তিকভাবে যা করণীয়


ডাঃ হাসনা হোসেন আখী

বজ্রপাত থেকে রক্ষা পেতে করণীয়


Royalbangla desk

পরিবারের / খুব কাছের মানুষ ক্যান্সার আক্রান্ত? কি করবেন? পর্ব ৩


ডাঃ লায়লা শিরিন

পাইলস কি ? কখন অপারেশন করাতে হয় ? কিভাবে ভাল থাকা যায়?


ডাঃ মোঃ মাজেদুল ইসলাম

কোষ্ঠকাঠিন্যঃ আছে সহজ সমাধান।


ডাঃ স্বদেশ বর্মণ

নরমাল ডেলিভারি না সিজার করাবেন?


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা)