Royalbangla
রয়াল বাংলা ডেস্ক
রয়াল বাংলা ডেস্ক

ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে করলার জুস ও অন‌্যন‌্য প্রসঙ্গ

ডায়াবেটিস

জীবনযাত্রার ধরনের পরিবর্তন এবং আরো নানাবিধ কারণে এখন বেশিরভাগ মানুষই ডায়াবেটিস নামক রোগের শিকার। আগে শুধুমাত্র বয়স্ক মানুষের মধ্যেই ডায়াবেটিস হওয়ার প্রবণতা ছিল এখন সব বয়সী মানুষের মধ্যেই এ রোগ দেখা যায়। অবস্থা ভেদে ২ ধরনের ডায়াবেটিস সব থেকে বেশি মানুষের হয়ে থাকে।
টাইপ ১- শরীরে ইনসুলিন তৈরি না হওয়া
টাইপ ২- শরীর ইনসুলিন এ ভালোভাবে সাড়া দেয় না।

ডায়াবেটিস এর কারণ


* অস্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস
* পুষ্টি সমৃদ্ধ খাবারের অভাব
* নিয়মিত শরীর চর্চা না করা
* জীনগত কারণে বা বংশ পরম্পরায় হতে পারে
* বয়স জনিত কারণে

ডায়াবেটিস এর ফলাফল


যে ধরনের ডায়াবেটিসই দেখা দিক না কেন, রোগীর দৈনন্দিন জীবন ধারণের পদ্ধতিই বদলে ফেলতে হবে। সম্পুর্ন নিরাময় করা সম্ভব না হলেও, এটি পুরোপুরি নিয়ন্ত্রনে রাখা যায়। তবে অভ্যাসের পরিবর্তন না করলে হৃদরোগ, দৃষ্টি শক্তি অমে যাওয়া, উচ্চ রক্তচাপ, রক্তে উচ্চমাত্রার কোলেস্টরেল ইত্যাদি জটিলতা দেখা দিতে পারে।

তেতো রস ও ডায়াবেটিস


তেতো খাবার ডায়াবেটিস কমিয়ে রাখতে সাহায্য করে। তবে তা সরাসরি রক্তে সুগারের মাত্রা কমিয়ে দেয় এ ধারণা ভুল। যদি তেতো খাবারে যথেষ্ট কার্বোহাইড্রেট থাকে তবে তা কোলেস্টেরল বাড়িয়ে দেয়।
তবে এক্ষেত্রে রস করে খেলে দারুণ কার্যকরী হয়। তেতো রস সুগার নিয়ন্ত্রন করে, ইনসুলিনের উৎপাদন বৃদ্ধি করে, লিভার এবং অন্যান্য পেশীতে গ্লাইকোজেনকে উদ্দীপ্ত করে, এছাড়াও শরীরে গ্লূকোজ জমা থেকে বিরত রাখে।
এত সব গুন থাকা সত্ত্বেও খেতে ভালো লাগেনা বলে অনেক রোগীই এটি খাওয়ায় উৎসাহ বোধ করেন না। এখানে সহনীয় মাত্রায় খাবার উপযোগী রস তৈরির উপায় বর্ণনা করা হলো।

  1. ১। শসা ও করলার রসঃ
    প্রয়োজনীয় উপকরন -
    * ২টি বড় করলা
    * ১টি মাঝারী আকারের শসা
    * ১টি সবুজ আপেল
    * ১/২ লেবু
    * ১/২ টেবিলচামচ বা পরিমান মতো লবণ

    রস তৈরির ধাপসমূহ -
    * করলা ভালোভাবে পরিষ্কার পানিতে ধুয়ে নিতে হবে এবং ছুরি দিয়ে উপরের খোসা ছিলে ফেলতে হবে।
    * লম্বা ভাবে কেটে ভিতর থেকে বিচি এবং অপ্রয়োজনীয় আঁশ ফেলে দিতে হবে এবং ছোট ছোট টুকরো করে কেটে নিতে হবে।
    * গামলায় পানিতে করলার টুকরো গুলো ১০ মিনিট ভিজিয়ে রাখতে হবে, এর মধ্যে ১/২ চামচ লবণ দেওয়া যেতে পারে।
    * এরপর শসা খোসা ছিলে , টুকরো করে কাটতে হবে।
    * সবুজ আপেল খোসা সহ ছোট করে কেটে নিতে হবে।
    * অতঃপর ভিজিয়ে রাখা করলা, আপেল ও শসা টুকরো ব্লেন্ডারে দিয়ে অথবা বেটে রস করতে হবে।
    * ১ গ্লাস এ শরবতের মধ্যে ১/২ লেবু চিপে রস মিশিয়ে দিতে হবে।
    দৈনিক খালি পেটে এক গ্লাস করে এ শরবত খাওয়া ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রনে দারুণ কার্যকরী।

  2. ২। কাঁচা হলুদ ও করলার শরবতঃ
    প্রয়োজনীয় উপকরন -
    * ২টি করলা
    * ১/২ লেবু
    * ১/৪ টেবিলচামচ কাঁচা হলুদের গুঁড়ো
    * ১ চিমটি হিমালয় লবণ
    * ১/২ চামচ সাধারণ লবণ

    শরবত তৈরির পদ্ধতি
    * করলা ভালোভাবে পরিষ্কার পানিতে ধুয়ে নিতে হবে এবং ছুরি দিয়ে উপরের খোসা ছিলে ফেলতে হবে।
    * লম্বা ভাবে কেটে ভিতর থেকে বিচি এবং অপ্রয়োজনীয় আঁশ ফেলে দিতে হবে এবং ছোট ছোট টুকরো করে কেটে নিতে হবে।
    * গামলায় পানিতে করলার টুকরো গুলো ১০ মিনিট ভিজিয়ে রাখতে হবে, এর মধ্যে ১/২ চামচ লবণ দেওয়া যেতে পারে।
    * ভিজানো করলা জুশার মেশিনে দিয়ে অথবা বেটে রস প্রস্তুত করতে হবে।
    * এ শরবতে ১/২ লেবুর রস, ১/২ টেবিল চামচ কাঁচা হলুদের গুঁড়ো এবং ১ চিমটি হিমালয় লবন মিশিয়ে নিতে হবে।
    খালি পেটে দৈনিক এ শরবত পানে রক্তে চিনির মাত্রা সহনীয় পর্যায়ে থাকে।
ডায়বেটিস রোগীর প্রতিদিনের ডায়েটে করলা রাখলেও উপকার পাওয়া যায়। সরাসরি চিনি যুক্ত খাবার বর্জন করতে হবে, নিয়মিত সকাল বিকাল শরীরচর্চা করতে হবে, এছাড়াও সারারাত পানিতে ভিজিয়ে রেখে সকালে অল্প লবণ দিয়ে চিরতার রস প্রতিদিন পান করলে ডায়াবেটিস এর প্রভাব থেকে মুক্ত থাকা সম্ভব। জরুরী অবস্থায় অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।
  1. royalbangla.com এ আপনার লেখা বা মতামত বা পরামর্শ পাঠাতে পারেন এই এ‌্যড্রেসে royal_bangla@yahoo.com
পরবর্তী পোস্ট

জেনে নিন থাইরয়েড সমস্যায় ওষুধ খাওয়ার সঠিক নিয়ম


.

সুস্থ্য থাকতে কোনটি খাবেন সাদা চিনি নাকি লাল চিনি ?


ডায়েটিশিয়ান সিরাজাম মুনিরা
.

গর্ভকালীন ডায়াবেটিস কি?


ডা. মোঃ মাজহারুল হক তানিম
.

হরমোন জনিত রোগের লক্ষণ জেনে রাখুন আপনার কাজে লাগতে পারে


ডা.মোঃ মাজহারুল হক তানিম
.

একজন ডায়াবেটিস রোগীর একদিনের ডায়েট চার্ট


ডা. মোঃ মাজহারুল হক তানিম
.

ডায়বেটিস রোগীর পায়ের যত্ন কেন এবং কিভাবে নেবেন ?


ডা. মোঃ মাজহারুল হক তানিম
.

ডায়াবেটিস কি ? ডায়াবেটিস থেকে দূরে থাকার উপায় কি ?


ডায়েটিশিয়ান সিরাজাম মুনিরা
.

প্রি-ডায়াবেটিস বা ডায়াবেটিস এর ঝুকি


Nutritionist Iqbal Hossain
.

অতিরিক্ত চিনি কিভাবে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমায় জেনে নিন


Nutritionist Tahmina Akter
.

হরমোন ও বন্ধ্যাত্ব!


ডা. মো মাজহারুল হক তানিম
.

জেনে নিন আপনি যে অভ্যাসগুলোর কারণে কিডনি রোগে আক্রান্ত হতে পারেন


নুসরাত জাহান, ডায়েট কন্সালটেন্ট

আক্কেল দাঁত কখন এবং কেন ফেলতে হয়?

ডা: এস.এম.ছাদিক,ওরাল এন্ড ম্যাক্সিলোফেসিয়াল সার্জারী
সাধারণত আক্কেল দাঁত সম্পূর্ণভাবে উঠার সময় হলো ১৭-২৫ বছর বয়স । কিন্তু ১৭-২০ বছর বয়সের মধ্যেই বুঝা যায় আক্কেল দাঁত সঠিকভাবে উঠবে কি না।....
বিস্তারিত

শালগম এর উপকারীতা

পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন,পুষ্টি কর্মকর্তা
শালগম অত্যন্ত পুষ্টিকর খাদ্য হিসেবে সুপরিচিত। ভিটামিন এ, সি এবং ভিটামিন কে তে ভরপুর থাকে শালগম। শালগমের সবচাইতে ভালো দিক হচ্ছে এদের ক্যালরি খুব কম থাকে। নিয়মিত শালগম খাওয়ার কিছু কারণ সম্পর্কে জেনে নিই চলুন।........
বিস্তারিত

সাইনাস আর সাইনুসাইটিস, আসুন সহজে বুঝে নিই.

ডা: এস.এম.ছাদিক,ওরাল এন্ড ম্যাক্সিলোফেসিয়াল সার্জারী
স্বাভাবিক নিশ্বাস নিতে মনে হয় নাকে কি যেনো আটকে আছে,, আবার নাক দিয়ে পানিও পড়ে। গায়ে হালকা জ্বর ও আছে, আবার সাথে মাথা ব্যাথা। তিনি ডাক্তারের কাছে গেলেন, ডাক্তার বললেন, আপনার সাইনুসাইটিস হয়েছে,........
বিস্তারিত

গর্ভাবস্থায় কি চা-কফি পান করা যায়?

ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,Consultant Sonologist
চা ও কফি আপনাদের অনেকেরই প্রছন্দের পানীয়। তাই গর্ভাবস্থায়ও খেতে চান, তাই না? এ ক্ষেত্রে আমাদের জানা উচিত এই পানীয় পান করা যাবে কি না, গেলে কতটুকু করা যাবে।......
বিস্তারিত

বাচ্চাদের ফল ও সবজি খাওয়ার অভ্যাস গড়ে তুলবেন কিভাবে?


পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন।বিএসসি (সম্মান), এমএসসি (প্রথম শ্রেণী) (ফলিত পুষ্টি ও খাদ্য প্রযুক্তি)

মহিলাদের ইনফার্টিলিটি দূর করার ক্ষেত্রে ডিম্বাণুর গুণাগুণ কেন গুরুত্বপূর্ণ?


ডাঃ হাসনা হোসেন আখী,এমবিবিএস, বিসিএস (স্বাস্থ্য),এমএস (অবস এন্ড গাইনী)

কিডনী সিস্ট কতটা ঝুঁকিপূর্ণ ?


ডাঃ মোহাম্মদ ইব্রাহিম আলী,এম.বি.এস,বিসিএস (স্বাস্থ্য) ,এমএস (ইউরোলজি)

শিশুদের ডায়েট কেমন হওয়া উচিত ?


নিউট্রিশনিস্ট সুমাইয়া সিরাজী,Bsc (Hon's) Msc (food & Nutrition)

লিভারের সুস্থতায় কি করবেন?


নুসরাত জাহান, ডায়েট কনসালটেন্ট

অনিয়মিত পিরিয়ডের কারণ , চিকিৎসা ও ঘরোয়া প্রতিকার


ডাঃ হাসনা হোসেন আখী