Royalbangla
ডাঃ হাসনা হোসেন আখী,এমবিবিএস, বিসিএস (স্বাস্থ্য),এমএস (অবস এন্ড গাইনী)
ডাঃ হাসনা হোসেন আখী,এমবিবিএস, বিসিএস (স্বাস্থ্য),এমএস (অবস এন্ড গাইনী)

ওয়াটার ব্রেক করা বা পানি ভাঙ্গা: যা জানা প্রয়োজন

মেয়েলি সমস্যা

ওয়াটার ব্রেক করা বা পানি ভাঙ্গা ভাঙা প্রসবের পূর্ব লক্ষণ ঠিকই; তবে তা নির্দিষ্ট সময়ে!

মা হতে চলেছেন আপনি! এর থেকে খুশির খবর আর মনে হয় কিচ্ছুটি হয় না। শরীরের ভিতরে একটু একটু করে বেড়ে ওঠা প্রাণ সাড়ম্বরে জানান দিচ্ছে তার অস্তিত্ব। নানান ধরনের পরিবর্তনের সম্মুখীন হচ্ছেন আপনিও। নিজের শরীরে যতটা গর্ব ভরে বয়ে চলেছেন মাতৃত্বের সমস্ত চিহ্ন; শরীরের ভিতরে ঘটা পরিবর্তন সম্বন্ধে আপনি ততটাই ওয়াকিবহাল তো? (How to Know When Your Water Breaks)

না, কোনও শক্ত হিসেব বা ডাক্তারি অভিজ্ঞতা নিয়ে আপনাকে ঘাঁটাঘাঁটি করতে বলছি না। নিজের শরীরে যা পরিবর্তন হচ্ছে বা আগামীতে হতে পারে, সেই নিয়ে আপনাকে একটু সজাগ থাকতে বলছি মাত্র। এতে কী হয়? কোনও অবস্থাতেই আপনি অযথা প্যানিক করবেন না বা ঘাবড়ে যাবেন না!

'পানি ভাঙা' বা 'ওয়াটার ব্রেক' করা প্রেগন্যান্সিতে খুব সাধারণ একটি ঘটনা (Water Breaking During Pregnancy)। নির্দিষ্ট সময়ে এই ওয়াটার ব্রেক হওয়া যেমন কাম্য, অন্য সময় হয়ে গেলে তা ভয়ের কারণই হতে পারে। তাই প্রয়োজন যথাযথ তত্ত্বাবধান ও চিকিৎসার।

কখন ওয়াটার ব্রেক হলে ভয় পাবেন না বা কখন হলে সঙ্গে সঙ্গে ডাক্তারকে খবর দেবেন, ওয়াটার ব্রেক হয়েছে সেটা বুঝবেন কীভাবে (How to Know When Your Water Breaks) এবং এই 'ওয়াটার ব্রেক' ঘটনাটি কী? সবকিছু নিয়ে আলোচনা রইল । আশা করি, হবু মায়েদের অনেকটাই সাহস জোগাবে এই আলোচনাটি।

পানি কেন ভাঙে বা ওয়াটার ব্রেক কেন হয়? (Why does the water break?)

সোজা ভাষায় বললে, গর্ভাবস্থায় থাকাকালীন বাচ্চা পানি ভর্তি একটা থলের মধ্যে বড় হয়। এই ব্যাগের পোশাকি নাম অ্যামনিওটিক স্যাক। আর এই ফ্লুয়িডকে বলে অ্যামনিওটিক ফ্লুয়িড। প্রসবের সময় হয়ে এলে এই স্যাক ভেঙে যায় এবং এর ভিতরের সমস্ত তরল হবু মায়ের ভ্যজাইনা দিয়ে বাইরে বেরিয়ে আসে। একেই ওয়াটার ব্রেক হওয়া বা চলতি কথায় 'পানি ভাঙা' বলে.

ওয়াটার ব্রেক হলে সেটা একজন গর্ভবতী বুঝবেন কীভাবে? (How to Know When Your Water Breaks)

- হঠাৎ ভ্যাজাইনা থেকে সরু স্রোতের মতো বর্ণহীন তরল বেরিয়ে আসে।

- অস্বাভাবিক ভাবে প্যান্ট ভিজে যাওয়া।

- তরলটির গন্ধ কিন্তু ইউরিনের মতো একেবারেই হয় না। বরং সেটা একটু মিষ্টি গন্ধযুক্ত হতে পারে। (Water Breaking Signs)

- ইউরিন হওয়ার সময় আমরা কিন্তু চাইলে তার বেগ কমাতে পারি, কিন্তু এই তরল যোনিপথ দিয়ে বাইরে বেরিয়ে আসে এবং যখন বেরোয় তখন এর বেগ কন্ট্রোল করা যায় না।

পানি ভাঙার সাথে প্রসব কীভাবে জড়িত? (Water Breaking as Sign of Labor)

সাধারণত, গর্ভবতী মহিলাদের তৃতীয় ট্রাইমেসটারের শেষের দিকে ওয়াটার ব্রেক হওয়া মানে প্রসবের সময় আসন্ন। ওয়াটার ব্রেক হওয়ার পরেই প্রসব যন্ত্রণা শুরু হয়। ওয়াটার ব্রেক হওয়ার ১২-২৪ ঘণ্টার মধ্যে লেবার পেন বা প্রসব যন্ত্রণা শুরু হতে পারে। অবশ্য কারও কারও ক্ষেত্রে এই সময়ের কম-বেশি হতেই পারে। যদি নির্দিষ্ট সময়ে ওয়াটার ব্রেক হয়ে গেছে, অথচ প্রসব বেদনা শুরু হচ্ছে না এরকম হয়; সেক্ষেত্রে চিকিৎসক ওষুধ প্রয়োগ করেন প্রসব বেদনা ওঠানোর জন্য।

এই অ্যামনিওটিক ফ্লুয়িড বেরিয়ে যাওয়ার পরে খুব বেশিক্ষণ বাচ্চা পেটের মধ্যে থাকলে ইনফেকশন হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। ক্ষতি হতে পারে বাচ্চা এবং সাথে মায়েরও। তাই ওয়াটার ব্রেক হয়ে যাওয়ার পরে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব প্রসব হয়ে যাওয়াই মঙ্গলের।মাত্র ১৫ শতাংশ মহিলার লেবার পেন বা প্রসব বেদনা ওঠার আগে ওয়াটার ব্রেক হয়ে যায়। বাকিদের ক্ষেত্রে লেবার পেন ওঠার পরেই এই ওয়াটার ব্রেক হয় বা ওষুধ/ইঞ্জেকশন প্রয়োগ করে করানো হয়।

নির্দিষ্ট সময়ের আগেই ওয়াটার ব্রেক বা পানি ভাঙলে কী হয়? (Premature Rupture of Membranes)

তৃতীয় ট্রাইমেসটার যখন শেষের দিকে, তখন ওয়াটার ব্রেক হওয়া খুব স্বাভাবিক এবং প্রার্থনীয়ও বটে! কিন্তু, ৩৭ সপ্তাহের আগেই যদি এই ঘটনা ঘটে, তা হলে একে প্রিটার্ম প্রিলেবার রাপচার অফ মেম্ব্রেন্স (Premature Rupture of Membranes) বলা হয়।

আগে কোনও প্রেগন্যান্সিতে সময়ের আগেই ওয়াটার ব্রেক হয়েছিল
অ্যামনিওটিক স্যাকে কোনওভাবে ইনফেকশন ছড়িয়ে গেলে
খাওয়া উচিত নয় এমন কোনও ওষুধ খেলে
ধূমপান বা মদ্যপান করলে
হবু মায়ের স্বাস্থ্য ভালো না হলে বা পুষ্টির অভাব হলে
সারভিকাল লেংথ ছোট থাকলে
প্রেগন্যান্সি চলাকালীন ব্লিডিং-এর সমস্যা দেখা দিলে।

সময়ের আগে ওয়াটার ব্রেক হলে যা হয়:

- মা ও বাচ্চার ক্ষতি হতে পারে

- গর্ভস্থ সন্তান নষ্ট পর্যন্ত হয়ে যেতে পারে বা মিসক্যারেজ হয়ে যায়

- ২৪ সপ্তাহ চলাকালীন ওয়াটার ব্রেক হয়ে গেলে, চিকিৎসক মা ও সন্তানের শরীর বুঝে কী ধরনের জটিলতা পরবর্তীতে আসতে পারে, তা বুঝিয়ে দিতে পারেন। সেক্ষেত্রে উভয়ের শারীরিক অবস্থা অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হয়।

- ২৪-৩৪ সপ্তাহ চলাকালীন যদি ওয়াটার ব্রেক হয়, তা হলে হবু মা’কে বিশেষ যত্নে রাখা হয় এবং ডেলিভারি যতটা সম্ভব পরে করা যায় সেই চেষ্টাই করা হয়। এর একটাই কারণ, গর্ভস্থ ভ্রূণ যাতে আরও কিছুটা পরিণত হয়ে ওঠে। মা ও হবু সন্তানকে বিশেষ ডাক্তারি তত্ত্বাবধানে রাখা হয়।

- ৩৪ সপ্তাহ চলাকালীন এই ঘটনা হলে, ডাক্তাররা ডেলিভারি করিয়ে দেওয়াই উচিত মনে করেন। কোনও ইনফেকশন হয়ে যাতে ভ্রূণের ক্ষতি না হয়, সেই কারণেই সময়ের আগেই ডেলিভারির কথা ভাবা হয়। সময়বিশেষে এই সিদ্ধান্তেরও পরিবর্তন হয়। যদি দেখা যায়, কোনও অসুবিধা হচ্ছে না বা কোনও ইনফেকশন হওয়ার আশঙ্কা নেই; সেক্ষেত্রে বিশেষভাবে মনিটর করা হয় মা ও সন্তানকে। এবং সময় বুঝেই ডেলিভারি করানো হয়।

বাড়িতে থাকা অবস্থায় ওয়াটার ব্রেক হলে কী করবেন? (What to Do if Water Breaks at Home)

- প্রসবের সময় যত এগিয়ে আসবে, আপনার ডাক্তারও কিন্তু আপনাকে সেইভাবে তৈরি করবেন। যাতে যে কোনও অবস্থায় আপনি অতিরিক্ত ঘাবড়ে না যান। আপনার শরীরের অবস্থা অনুযায়ী তিনি এই বিষয়েও আপনাকে সবকিছু জানিয়ে রাখবেন। মেনে চলুন ওনার পরামর্শই।

- যদি আপনি খুব ভয় পেয়ে যান বা ডাক্তারের বলা কথা আপনার মনে না থাকে; তা হলেও কোনও অসুবিধা নেই। সত্বর চলে যান ওনার চেম্বারে।

- যদি আপনার ডাক্তার বলেছেন যে, ওয়াটার ব্রেক হওয়ার পরবর্তী ১২ ঘণ্টা অপেক্ষা করে দেখতে লেবার পেন উঠছে কি না, তা হলে সেটাই করুন। এই সময়টা খুবই সাবধানে থাকবেন কারণ এই সময়ে বাচ্চার ইনফেকশন হয়ে যাওয়ার প্রবল আশঙ্কা থাকে। ভিজে যাওয়া আটকাতে ভালো মানের প্যাড ব্যবহার করুন। কোনও কাপ না ট্যামপোন্স ব্যবহার করবেন না।

- ভ্যাজাইনাল এরিয়া পরিষ্কার রাখুন, বাথরুমে গেলে নিজের গোপনাঙ্গ সামনে থেকে পিছনের দিকে পরিষ্কার করুন।

- পরিষ্কার জায়গায় বিশ্রাম নিন এবং একটু শুয়ে বসে থাকুন।

সময়বিশেষে এই জল ভাঙার পদ্ধতি কি বাইরে থেকে ত্বরান্বিত করা যায়? (Artificially Breaking Your Water)

প্রসব যন্ত্রণা উঠেছে এবং অনেকক্ষণ ধরে চলছে; অথচ ওয়াটার ব্রেক হয়নি। এরকম অবস্থায় চিকিৎসক অনেক ক্ষেত্রেই বাইরে থেকে বিশেষ ব্যবস্থা নিয়ে ওয়াটার ব্রেক করিয়ে দেন। প্রসবক্রিয়া কিছুটা হলেও কম সময় নেয়। ওয়াটার ব্রেক হয়ে গেলে কন্ট্রাকশন আরও তীব্র হয় এবং ব্যথাও বেশি হয়।

এছাড়াও প্রেগন্যান্সিতে কখনও ওয়াটার ব্রেক হলে যদি সেই জল বাদামি বা সবুজ রঙের বেরোয়, সঙ্গে সঙ্গে ডাক্তারকে ডাকুন। বাচ্চা পেটের ভিতর মলত্যাগ করলে এই ঘটনা হতে পারে। যথাযথ ব্যবস্থা না নিলে ইনফেকশন ছড়িয়ে যাওয়ার আশঙ্কা প্রবল। নিজের শরীরে ঘটা পরিবর্তনগুলো সম্পর্কে নিজে ওয়াকিবহাল থাকুন এবং সতর্ক থাকুন, দেখবেন কোনও ঘটনাই আপনাকে বিব্রত করতে পারবে না।

এই লেখকের সব লেখা পড়ুন নিচের লিংক থেকে।
www.royalbangla.com/dr.hasnahossain

লেখিকা
ডাঃ হাসনা হোসেন আখী
এমবিবিএস, বিসিএস (স্বাস্থ্য)
এমএস (অবস এন্ড গাইনী)
ট্রেইন্ড ইন ল্যাপারস্কপি এন্ড ইনফার্টিলিটি স্ত্রী রোগ ও প্রসূতি বিদ্যা বিশেষজ্ঞ এবং ল্যাপারস্কপিক সার্জন।
ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল।
নিয়মিত রোগী দেখছেন: মার্কস কনসালটেশন সেন্টার।
প্রতিদিন : বিকেল ৫ টা হতে রাত ৮ টা পর্যন্ত।
সিরিয়াল :
01729-269437.
সিরাজ মার্কেট (২য় তলা), কচুক্ষেত, ঢাকা-১২০৬। (ফুট ওভার ব্রিজের পাশে)
লেখকের সাথে যোগাযোগ করতে নিচের ফেসবুক পেইজে ক্লিক করুন
www.facebook.com/dr.hasnahossain

  1. royalbangla.com এ আপনার লেখা বা মতামত বা পরামর্শ পাঠাতে পারেন এই এ‌্যড্রেসে royal_bangla@yahoo.com
পরবর্তী পোস্ট

দুধ খাওয়া কেন প্রয়োজন? দৈনিক কতটুকু দুধ পান করা উচিত?


.

নরমাল ডেলিভারি না সিজার করাবেন?


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা)
.

ফিটাল প্রেজেন্টেশন ও নরমাল ডেলিভারি।


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা)
.

গর্ভপাত (Miscarriage/abortion)


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা)
.

পলিসিস্টিক ওভারিয়ান সিন্ড্রোম (PCOS) ও এর প্রভাব।


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা)
.

গর্ভাধারণের আগে এবং গর্ভাবস্থায় ফলিক অ্যাসিড কেন খাবেন।


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা)
.

মহিলারা কখন কয়টি টিটি টিকা নিবেন?


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,,Consultant Sonologist
.

গর্ভাবস্থায় প্রথম আল্ট্রাসনোগ্রাম (প্রেগ্ন্যান্সি প্রোফাইল) কখন, কেন করাবেন?


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,,Consultant Sonologist
.

প্রেগ্ন্যান্সিতে 3D/4D আল্ট্রাসনোগ্রাম কখন কেন করাবেন।


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,,Consultant Sonologist
.

বেবির নড়াচড়া (Fetal movements) কেন এবং কিভাবে খেয়াল করবেন?


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,,Consultant Sonologist
.

হাইপোথাইরয়েডিজম (Hypothyroidism)- গর্ভবতী মা ও অনাগত শিশুর উপর এর প্রভাব


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,,Consultant Sonologist
.

থ্রেটেন্ড গর্ভপাত (Threatened abortion)


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,Consultant Sonologist
.

মিসড গর্ভপাত (missed abortion / missed miscarraige)


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,Consultant Sonologist
.

গর্ভাবস্থায় কি চা-কফি পান করা যায়?


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,Consultant Sonologist
.

ব্র‍্যাক্সটন-হিক্স সংকোচন (Braxton-Hicks contractions) অথবা ফলস লেবার পেইন (False labour pain)।


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা),Consultant Sonologist
.

ডেলিভারির উপযুক্ত সময়


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা),Consultant Sonologist

সুস্থ এবং ফিট থাকতে একজন নারী প্রাত্যহিক জীবনে যে রুটিন মেনে চলবেন

পুষ্টিবিদ মুনিয়া মৌরিন মুমু
একজন নারী যিনি কর্মজীবী হোন কিংবা গৃহিণী, সকাল থেকে রাত অবধি প্রচন্ড ব্যস্ত সময় পার করেন। সারাদিনের ব্যস্ততায় নিজের দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করতে গিয়ে অনেকেই নিজের প্রতি খেয়াল রাখার সময় পান না।.......
বিস্তারিত

ছেলে না মেয়ে হবে

ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা),Consultant Sonologist
আপনার ছেলে না মেয়ে হবে এটি আসলে পুরোপুরি সৃষ্টি কর্তার হাতে। এখানে আমরা চাইলেও কিছুই করতে পারি না। তবে ছেলে না মেয়ে হবে তাতে বাবা মায়ের কি কোন ভূমিকা নাই?......
বিস্তারিত

১ চামচ তেলে ডিম কারি রেসিপি (ভিডিও)

পুষ্টিবিদ জয়তী মুখার্জী
১ চামচ তেলে ডিম কারি রেসিপি । Diet-Friendly & Healthy Egg Recipe | Simple Egg Recipe For Everyone.....
বিস্তারিত

ডায়েটে রাখুন ছোট মাছ

পুষ্টিবিদ মুনিয়া মৌরিন মুমু
ক্যালসিয়াম একটি খনিজ উপাদান যেটা মানব শরীরের জন্য অতি প্রয়োজনীয় খনিজ উপাদানের মধ্যে অন্যতম। আমাদের শরীরের কাঠামো তৈরি হয় হাড়ের মাধ্যমে আর এই হাড় মজবুত এবং শক্ত রাখতে সাহায্য করে থাকে ক্যালসিয়াম।...
বিস্তারিত

গর্ভাবস্থায় মুখের সমস্যা ও তার প্রতিকার :

ডা: এস.এম.ছাদিক,ওরাল এন্ড ম্যাক্সিলোফেসিয়াল সার্জারী
গর্ভাবস্থায় আপনাকে অনেক কিছুই ভাবতে হয়, তখন মুখের স্বাস্থ্যের কথা ভুলে গেলে চলবে না।হরমোনগত পরিবর্তনের কারনে শরীরের বিভিন্ন অংশেরসাথে তাল মিলিয়ে আমাদের মুখ গহবরের গঠনগত কিছুপরিবর্তন আসে।.....
বিস্তারিত

লোফ্যাট (সেমি-স্কিমড)/ ননফ্যাট (স্কিমড)/ স্বল্পননীযুক্ত দুধ এসব আসলে কি?

পুষ্টিবিদ জয়তী মুখার্জী
দুধ আদর্শ খাদ্য, তাই নিয়মিত সবারই দুধ পান করা উচিত (যাদের ইন্টলারেন্স নাই)। আর ওজন কমাতে ফ্যাটফ্রি বা লোফ্যাট মিল্ক খাওয়া জরুরি। কিন্তু অনেকেই গরুর দুধকে নিজে নিজে লো ফ্যাট বানাতে গিয়ে কিছু ভুল করে ফেলেন ৷.....
বিস্তারিত

অ্যামনিওটিক ফ্লুইড কি এবং এর প্রয়োজনীয়তা কি?

ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা),Consultant Sonologist
প্রেগ্ন্যান্সি রিলেটেড আল্ট্রাসনোগ্রামের রিপোর্টে আমরা AFI / SDP এর মিজারমেন্ট দিয়ে থাকি। এটি অ্যামনিওটিক তরলের পরিমান বুঝাতে ব্যবহৃত হয়।....
বিস্তারিত

শালগম এর উপকারীতা

পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন,পুষ্টি কর্মকর্তা
শালগম অত্যন্ত পুষ্টিকর খাদ্য হিসেবে সুপরিচিত। ভিটামিন এ, সি এবং ভিটামিন কে তে ভরপুর থাকে শালগম। শালগমের সবচাইতে ভালো দিক হচ্ছে এদের ক্যালরি খুব কম থাকে। নিয়মিত শালগম খাওয়ার কিছু কারণ সম্পর্কে জেনে নিই চলুন।........
বিস্তারিত

মৌসুমি ডিপ্রেশন মোকাবিলায় কতখানি প্রস্তুত!!

জিয়ানুর কবির,ক্লিনিক্যাল সাইকোলজিষ্ট
এই সময়ে শীত বাড়ার সাথে সাথে দিনের আলো কমতে শুরু করেছে এবং বাইরে সবকিছু শীতল হয়ে যাচ্ছে। বেশিরভাগ মানুষ ঘর থেকে বের হতে চান না এবং বাইরে কম বের হবার কারণে অনেকেই ডিপ্রেশনের মতো লক্ষণগুলির মুখোমুখি হতে পারেন।....
বিস্তারিত

No Junk Food for Child- বাচ্চাকে যে কারণে জাঙ্কফুড খাওয়া বারণ

নিউট্রিশনিস্ট সুমাইয়া সিরাজী,
বাচ্চা পছন্দ করে বলে তাকে বার্গার কোক পিজ্জা ফাস্টফুড প্রায় দিতে হবে কেনো? বাচ্চা যদি বিষ পছন্দ করে তাহলে কি দিতে পারবেন?.....
বিস্তারিত

এক্টোপিক গর্ভাবস্থা - কারণ, লক্ষণ, এবং চিকিত্সা

ডাঃ হাসনা হোসেন আখী,এমবিবিএস, বিসিএস (স্বাস্থ্য),এমএস (অবস এন্ড গাইনী)
গর্ভাবস্থা একটি মহিলার জন্য সবচেয়ে সুন্দর অভিজ্ঞতাগুলির একটি । মা হওয়ার উপহারটি বিহ্বলকারী এবং আপনার ও আপনার সঙ্গীর অভীষ্ট । যাইহোক, সব গর্ভাবস্থা স্বাভাবিক হতে পারে না, এবং কিছুকে আগেই শেষ......
বিস্তারিত

ফাস্টফুডকে না বলুন

পুষ্টিবিদ মুনিয়া মৌরিন মুমু
যেকোন প্যাকেটজাত খাবার এবং ফাস্টফুড আইটেমে প্রয়োজনের তুলনায় অতিরিক্ত ফ্যাট এবং চিনি থাকে এবং দীর্ঘদিন ধরে এ ধরনের খাবার গ্রহণের ফলে স্বাস্থ্য-ঝুঁকি বেড়ে যায় বহুগুণ।....
বিস্তারিত

সুপারবাগ: মানবজাতির জন্য কতটা ভয়ংকর?


ডাঃ গুলজার হোসেন ,বিশেষজ্ঞ হেমাটোলজিস্ট

আত্মহত্যা প্রতিরোধে আমাদের যা করা উচিত


ডা. ফাতেমা জোহরা , মনোরোগ, যৌনরোগ ও মাদকাসক্তি নিরাময় বিশেষজ্ঞ

গর্ভধারণ এবং স্তন ক্যান্সার পর্ব ১


ডাঃ লায়লা শিরিন,অধ্যাপক, ক্যান্সার সার্জারী, জাতীয় ক্যান্সার গবেষণা ইন্সটিটিউট ও হাসপাতাল।

ইউরিক এসিড জনিত সমস্যায় কি করণীয় জেনে নিন


ডা: অনির্বাণ মোদক পূজন,হৃদরোগ, বাতজ্বর ও উচ্চ রক্তচাপ রোগ বিশেষজ্ঞ

হাইপোথাইরয়েডিজম (Hypothyroidism)- গর্ভবতী মা ও অনাগত শিশুর উপর এর প্রভাব


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,,Consultant Sonologist

ডায়াবেটিস: প্রতিকার ও প্রতিরোধ


পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন।বিএসসি (সম্মান), এমএসসি (প্রথম শ্রেণী) (ফলিত পুষ্টি ও খাদ্য প্রযুক্তি)

রাগ প্রকাশের গ্রহনযোগ্য উপায়।


জিয়ানুর কবির,ক্লিনিক্যাল সাইকোলজিষ্ট,বি-এস.সি (অনার্স), সাইকোলজি,পিজিটি (সাইকোথেরাপি),এম.এস ও এম.ফিল

নতুন দম্পতিরা জন্মনিয়ন্ত্রণ করবেন কিভাবে?


ডাঃ হাসনা হোসেন আখী,এমবিবিএস, বিসিএস (স্বাস্থ্য),এমএস (অবস এন্ড গাইনী)

রক্তের অসুখ পলিসাইথেমিয়া


ডাঃ গুলজার হোসেন ,বিশেষজ্ঞ হেমাটোলজিস্ট

ভ্যারিকোসিল কি? কাদের হয়? কি করণীয়?


ডাঃ মোঃ মাজেদুল ইসলাম,এমবিবিএস, এফসিপিএস (সার্জারি),জেনারেল, কোলোরেক্টাল এবং ল্যাপারোস্কোপিক সার্জন।

দাঁত ব্রাশের সময় যে ৭টি ভুল করি আমরা


ডা: এস.এম.ছাদিক,বি ডি এস (ডি ইউ),এম পি এইচ (অন কোর্স)

হার্ট এটাক সম্পর্কে যেসব তথ্য সবার জানা দরকার


ডা: অনির্বাণ মোদক পূজন

মহিলারা কখন কয়টি টিটি টিকা নিবেন?


ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা) ,,Consultant Sonologist

জরায়ুর মুখে ক্যান্সার


ডাঃ হাসনা হোসেন আখী,এমবিবিএস, বিসিএস (স্বাস্থ্য),এমএস (অবস এন্ড গাইনী)

ক্যান্সার ম্যানেজমেন্ট: ক্যান্সার রোগীদের জন্য জরুরি টিপস


ডাঃ লায়লা শিরিন

বাবার জন্য সন্তানের রক্ত কতটুকু নিরাপদ?


ডাঃ গুলজার হোসেন,বিশেষজ্ঞ হেমাটোলজিস্ট জাতীয় ক্যান্সার গবেষণা ইন্সটিটিউট ও হাসপাতাল

আপনি জানেন কী, কোন খাবারগুলোর সাথে আপনার শরীরের অঙ্গের মিল রয়েছে?


নুসরাত জাহান, ডায়েট কনসালটেন্ট

কিভাবে ধূমপান ছাড়বেন?


জিয়ানুর কবির

সুস্থ সুন্দর সন্তান জম্মদানের জন্য আপনার করণীয়


ডাঃ আয়েশা রাইসুল

বাচ্চা কেন হেলদি হচ্ছে না


পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন

পজিটিভ প্যারেন্টিং


জিয়ানুর কবির

পানি পানের সঠিক নিয়ম


নুসরাত জাহান, ডায়েট কনসালটেন্ট

গর্ভকালীন কোষ্ঠকাঠিন্য কেন হয়? এবং মুক্তির উপায় কী ?


ডাঃ মোঃ আশেক মাহমুদ ফেরদৌস

ডিম নিয়ে যত প্রশ্ন.....???


নিউট্রিশনিস্ট সুমাইয়া সিরাজী