Royalbangla
ডাঃ মোঃ আশেক মাহমুদ  ফেরদৌস
ডাঃ মোঃ আশেক মাহমুদ ফেরদৌস

মলদ্বারে ব্যাথা/ ঘা (এনাল ফিসার) কেন হয় ? এর সমাধান কি ?

কোষ্ঠকাঠিন্য ও পাইলস

মলদ্বারের ব্যথা খুবই common একটা সমস্যা। জীবনের কোন এক সময় এই সমস্যার সম্মুখীন হন নাই এমন মানুষ খুব কমই পাওয়া যাবে। আর এনাল ফিশার হচ্ছে মলদ্বার ব্যাথার একটা প্রধান কারণ। আর ফিসার মানে মলদ্বারে ঘা অথবা ফেটে যাওয়া।

ফিসার কয় ধরনের?

এটি দুই ধরনের হয়। তীব্র (একিউট) ফিশার হলে রোগীর মলদ্বারে অসম্ভব ব্যথা হয়। দীর্ঘস্থায়ী (ক্রনিক) ফিশারে ব্যথার মাত্রা কম থাকে তবে অস্বস্তি বেশি থাকে।

কাদের হয় ?

বাচ্চা থেকে বয়স্ক যে কারো হতে পারে।

ফিসার কেন হয় (কারণসমূহ):

• দীর্ঘমেয়াদী কোষ্ঠকাঠিন্য বা পাতলা পায়খানা।

• শাক সবজি ও অন্যান্য আঁশযুক্ত খাবার এবং পানি কম খাওয়া।

• মাংশ জাতীয় খাবার, ফাস্ট ফুড, বেশি মসলাযুক্ত, ঝাল ও চর্বি জাতীয় খাবার খাওয়া।

• শরীরের অতিরিক্ত ওজন।

• গর্ভাবস্থা।

• মল ত্যাগে বেশী চাপ দেয়া বা কোত দেয়া।

• ঘনঘন পায়খানা নরমকারক ওষুধ ব্যবহার করা।

• টয়লেটে প্রয়োজনের অধিক সময় ব্যয় করা।

• আঙ্গুল দিয়ে পায়খানা বের করা।

• বংশগত কারন।

• নিয়মিত টয়লেট / মলত্যাগ না করা।

উপসর্গ :

মলদ্বারে ফিশারের প্রধান লক্ষণ ব্যথা ও রক্তক্ষরণ। এ ধরনের ব্যথা সাধারণত মলত্যাগের অব্যবহিত পরে হয় এবং কয়েক মিনিট থেকে বহু ঘণ্টা ধরে ব্যথা চলতে পারে। দীর্ঘস্থায়ী (ক্রনিক) এনাল ফিশারের রোগী একটু ভিন্ন ধরনের উপসর্গের কথা বলে। তাদের ক্ষেত্রে কখনও কখনও মলদ্বারে অতিরিক্ত মাংসপিণ্ড, পুঁজ পড়া, চুলকানি অথবা এসব একত্রে দেখা দিতে পারে।

তীব্র ব্যথা সম্পন্ন ঘা (একিউট এনাল ফিশার) :

• তীব্র ব্যথা হয়।

• পায়খানা করতে ভয় কাজ করে।

• মনে হয় একটা ব্লেড উপর থেকে কাটতে কাটতে নিচে নামছে।

• রক্তপাত সাধারনত কম হয়। অধিকাংশ ক্ষেত্রে পায়খানার গাঁয়ে লাগানো থাকে।

• এ সময় মলদ্বার পরীক্ষা করলে দেখা যায় সেটা খুবই সঙ্কুচিত অবস্থায় আছে।

 এনাল ফিসার এর লক্ষণ

দীর্ঘস্থায়ী ব্যথা সম্পন্ন ঘা (ক্রনিক এনাল ফিশার) :

• এ ক্ষেত্রে একটি মাংসপিণ্ড বা ‘গেজ ’ দেখা যায়।

• রক্তক্ষরণ থাকতে পারে অথবা নাও থাকতে পারে।

• ব্যথা সাধারণত তীব্র হয় না অথবা অনেক সময় ব্যথা থাকেই না।

• মহিলারা কখনও কখনও শারীরিক মিলনে ব্যথা অনুভব করেন।

• এ ক্ষেত্রে পায়ুপথের ভেতর যন্ত্র দিয়ে পরীক্ষা করা উচিত।

• এ ফিশার সংক্রমিত হয়ে কখনও কখনও ফোঁড়া দেখা দিতে পারে এবং তা থেকে ফিস্টুলা (ভগন্দর) হয়ে পুঁজ পড়তে পারে।

ফিসার রোধে কি করব ?

• শাক সবজি বেশি খাবেন,মাংশ কম খাবেন।

• ফাস্ট ফুড, বেশি মসলাযুক্ত, ঝাল ও চর্বি জাতীয় খাবার খাবেন না।

• পানি বেশি খাবেন, সফট ড্রিংকস খাবেন না।

• দীর্ঘস্থায়ী কোষ্ঠকাঠিন্য বা পাতলা পায়খানা এড়িয়ে চলবেন।

• নিয়মিত টয়লেট / মলত্যাগ করুন।

• শরীরের ওজন কমান।

• অধিক সময় টয়লেটে বসে থাকবেন না।

• প্রয়োজনে রাতে ও সকালে ২ মুঠ ঈশপ গুলের ভুষি পানিতে / লেবুর শরবত / দুধ / ফলের রসের সাথে ভিজিয়ে খেতে পারেন।

চিকিৎসা :

• একিউট এনাল ফিশার শুরুর অল্পদিনের মধ্যেই চিকিৎসা শুরু হলে বিনা অপারেশনে ভালো হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে।

• ব্যথানাশক ওষুধ ব্যবহার করা যেতে পারে।

• হিপ বাথ- এক গামলা কুসুম গরম পানিতে ৬ চামচ Acriflavin Solution মিশিয়ে মলদ্বার ভিজিয়ে বসে এবং পরিষ্কার করতে পারেন প্রতিদিন ৩ বার করে ২১ দিন।

• স্থানিক অবশকারী মলম ব্যবহারে উপকার পাওয়া যায়।

• এতে যদি পুরোপুরি না সারে এবং বেশি দিন স্থায়ী হয় তাহলে অপারেশন ছাড়া ভালো হওয়ার সম্ভাবনা কমতে থাকে।

সার্জিক্যাল চিকিৎসা :

• মলদ্বারের মাংসপেশির সম্প্রসারণ করা (Manual এনাল ডাইলেটেশন)- এ পদ্ধতিটির পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া বেশি। পুনরায় হওয়ার সম্ভাবনা ও অনেক বেশি।

• মলদ্বারের স্ফিংটারে অপারেশন(PLIS) : এই অপারেশনে মলদ্বারের অভ্যন্তরীণ স্ফিংটার মাংশপেশিতে একটি সূক্ষ্ম অপারেশন করতে হয়। পরদিন রোগী বাড়ি যেতে পারে ও স্বাভাবিক কাজকর্ম করতে পারেন।

লেখক
ডাঃ মোঃ আশেক মাহমুদ ফেরদৌস
FCPS(surgery) FISCP(India) Ms(Colorectal Surgery) Bangabandhu Sheikh Mujib Medical Univarsity
Chamber:
নেক্সাস হাসপাতাল-ঢাকা রোড - ময়মনসিংহ Contact:01796586561
লেখকের সাথে যোগাযোগ করতে নিচের ফেসবুক পেইজে ক্লিক করুন
www.facebook.com/Colorectal-Care-Dr-Md-Ashek-Mahmud-Ferdaus-911427482298482

  1. royalbangla.com এ আপনার লেখা বা মতামত বা পরামর্শ পাঠাতে পারেন এই এ‌্যড্রেসে royal_bangla@yahoo.com
পরবর্তী পোস্ট

রাইনোপ্লাস্টি (Rhinoplasty) নাকের সৌন্দর্য বর্ধনের সার্জারি।


গর্ভাবস্থায় ঝুকি

পুষ্টিবিদ মোঃ ইকবাল হোসেন,পুষ্টি কর্মকর্তা
প্রতিটি মেয়ের বুকের মাঝে লালিত স্বপ্নগুলোর মাঝে অন্যতম একটি স্বপ্ন হচ্ছে মা হওয়া। সুস্থ্য স্বাভাবিক মাতৃত্ব আমাদের সবার কাম্য। তবে কিছু কিছু ক্ষেত্রে অনাকাঙ্ক্ষিত কিছু জটিলতা দেখা দেয় যা.....
বিস্তারিত

এনোমালি স্ক্যানে সমস্যা ধরা পড়লে করণীয় কি?

ডাঃ সরওয়াত আফরিনা আক্তার (রুমা),Consultant Sonologist
এনোমালি স্ক্যানের মাধ্যমে অধিকাংশ মেজর জন্মগত ত্রুটি ধরা পড়ার কথা যদি ভাল মেশিন ও দক্ষ সনোলজিস্ট দিয়ে করানো হয়। ধরুন কারো এনোমালি স্ক্যানের রিপোর্টে.....
বিস্তারিত

পুরুষ বন্ধ্যাত্ব, প্রয়োজন চিকিৎসার

ডাঃ হাসনা হোসেন আখী,এমবিবিএস, বিসিএস (স্বাস্থ্য),এমএস (অবস এন্ড গাইনী)
কোভিড আবহে দীর্ঘদিন গৃহবন্দি থাকার সময় বিশেষজ্ঞরা মনে করেছিল যে সন্তান উৎপাদনের হার বৃদ্ধি পাবে । কিন্তু হিসাব অনুযায়ী দেশে সন্তানহীন দম্পতির সংখ্যা ক্রমশ বাড়ছে।....
বিস্তারিত

ডালিম বা বেদানায় কতখানি আয়রন?

ডাঃ গুলজার হোসেন ,বিশেষজ্ঞ হেমাটোলজিস্ট
বেদানার রঙ লাল দেখে অনেকেই ভাবেন রক্ত বুঝি এখানেই। বাস্তবতা হলো বেদানায় আয়রন আছে ঠিকই কিন্তু সেটা আয়রনের বেস্ট সোর্স নয়। একশ গ্রাম বেদানায় আয়রন থাকে ০.৩ মিলি গ্রাম।......
বিস্তারিত

সুস্থতায় নিয়মানুবর্তিতা: যেসব নিয়ম মেনে চললে দীর্ঘদিন সুস্থ থাকা যায়


পুষ্টিবিদ মুনিয়া মৌরিন মুমু

বাচ্চার আদর্শ খাদ্যাভ্যাস গড়ে তুলতে যা করা উচিত এবং যা করা উচিত নয়


নিউট্রিশনিস্ট সুমাইয়া সিরাজী,Bsc (Hon's) Msc (food & Nutrition)

ব্রেস্ট ফিডিং মায়েদের ডায়েট কেমন হওয়া উচিত?


নিউট্রিশনিস্ট সুমাইয়া সিরাজী,Bsc (Hon's) Msc (food & Nutrition)

লিম্ফোমাঃ রক্তের বিশেষ একপ্রকারের ক্যান্সার


ডাঃ গুলজার হোসেন ,বিশেষজ্ঞ হেমাটোলজিস্ট

রক্তের অসুখ পলিসাইথেমিয়া


ডাঃ গুলজার হোসেন ,বিশেষজ্ঞ হেমাটোলজিস্ট

ভ্যারিকোসিল কি? কাদের হয়? কি করণীয়?


ডাঃ মোঃ মাজেদুল ইসলাম,এমবিবিএস, এফসিপিএস (সার্জারি),জেনারেল, কোলোরেক্টাল এবং ল্যাপারোস্কোপিক সার্জন।